1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. banglaronusandhantv@gmail.com : বাংলার অনুসন্ধান : বাংলার অনুসন্ধান টিভি
বুধবার, ২১ এপ্রিল ২০২১, ০৮:১৪ পূর্বাহ্ন
"
ব্রেকিং নিউজ
“সৈনিক ” সুবর্ণা চৌধুরী ব্যাপক নিরাপত্তা নিশ্চিত করে আগামীকাল মাগুরা পৌরসভার নির্বাচনের প্রস্তুতি সম্পূর্ণ মাগুরায় প্রতিবন্ধী শিশু ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা মাগুরার মহম্মদপুরের কৃতিসন্তান লেঃ কর্ণেল কাজী শরীফ উদ্দিনের  সেনাবাহিনীর কর্ণেল পদে পদোন্নতি মাগুরা যশোর মহা সড়কে দুর্ঘটনায় আহত ২ নিহত ১ সুখবর -আগামি ২১শে ডিসেম্বর ২০২০ থেকে চালু হচ্ছে দেশের সব থেকে আধুনিক ক্রুজ শিপ এম ভি বে ওয়ান। মাগুরা পৌরসভার নির্বাচনে আঃ লীগের মনোনয়ন পেলেন খুরশিদ হায়দার টুটুল ৬১ পৌরসভায় নির্বাচন : আ.লীগের মেয়র প্রার্থী চূড়ান্ত হচ্ছে আজ মাগুরায় ইয়াবা সহ মাদক কারবারি আটক বিজয় দিবস উপলক্ষে মাগুরা জেলা যুবলীগের বাইসাইকেল ও পতাকা র‌্যালী

অমিতাভ বচ্চন তাঁর জীবনীতে লিখেছেন

  • আপডেট করা হয়েছে সোমবার, ২৪ আগস্ট, ২০২০
  • ১২১ বার পড়া হয়েছে

অমিতাভ বচ্চন তাঁর জীবনীতে লিখেছেন-

আমি তখন ক্যারিয়ারের তুঙ্গে। একদিন প্লেনে করে যাচ্ছিলাম । খুব সাধারণ শার্ট আর প্যান্ট পরিহিত একজন ভদ্রলোক আমার পাশে বসেই যাচ্ছিলেন৷ দেখে উনাকে একজন শিক্ষিত এবং মার্জিত মধ্যবিত্ত মানুষ মনে হয়েছিলো । অন্য সহযাত্রীরা আমায় চিনতে পেরে খুব উৎসাহিত হয়ে অটোগ্রাফ নিচ্ছে। কিন্তু পাশে বসা ভদ্রলোককে লক্ষ্য করলাম উনার কোন ভ্রুক্ষেপ নেই ।

উনি একমনে একটা খবরের কাগজ পড়ছিলেন আর মাঝে মাঝে জানালার বাইরে তাকিয়ে কি যেন ভাবছিলেন । চা পরিবেশন করা হলো, ঠোঁটের আগেই থ্যাঙ্কস লেগেই আছে। আমাকে পাত্তাই দিচ্ছে না।

আমার উনার প্রতি কৌতুহল বেড়েই চলছিলো । তাই উনার সাথে কথা বলার জন্য উনার দিকে তাকিয়ে হাসলাম । উনিও একটা সৌজন্যমূলক হাসি ফিরিয়ে দিয়ে বললেন ……’হ্যালো’ ……. কিছু সৌজন্যমূলক কথোপকথন শুরু হলো ।

আমিই নিজে থেকে সিনেমা প্রসঙ্গ উত্থাপন করলাম।
জিজ্ঞাসা করলাম :’ আপনি সিনেমা দেখেন ?’
উনি বললেন ‘কখনো-সখনো ।
শেষ যে সিনেমাটা দেখেছি …..
হ্যাঁ…তাও প্রায় এক বছরের বেশী হয়ে গেছে ।’
বললাম ‘ আমি ঐ ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতেই আছি ।’
উনি উৎসাহিত হয়ে বললেন ‘ দারুণ ব্যাপার!
তা আপনি কি করেন ?’
বললাম, ‘ আমি একজন অভিনেতা ।’
প্রত্যুত্তরে বললেন ‘দারুণ! ‘
ব্যাস! ওই পর্যন্তই …….
প্লেন ল্যান্ড করার পর আমি ভদ্রলোকের দিকে করমর্দনের জন্য হাতটা বাড়িয়ে দিয়ে বললামঃ
‘আমার নাম অমিতাভ বচ্চন’
উনি মাথা নত করে আমার হাতটা ঝাঁকিয়ে দিয়ে বললেনঃ ‘আপনার সাথে পরিচয় হয়ে দারুণ লাগলো !
আমার নাম জে.আর.ডি. টাটা .. (Jehangir Ratanji Dadabhoy Tata, chairman of TATA Group)…
চমকে উঠলাম আমি !
ঐ দিনের ঘটনা থেকে একটা বিষয় শিখলাম:
“যত বড়ই হই না কেনো, আমার থেকেও বড় কেউ আছে কিন্ত তাঁর দৃষ্টিটা সর্বদাই মাটির দিকে !”

শিক্ষনীয়ঃ গাছ যতই বড় হয় ততটাই মাটির দিকে ঝুঁকে যায়।।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
প্রকাশক কর্তৃক সর্বসত্ব সংরক্ষিত

Designed by: Nagorik It.Com